হ্যাকিং শিখুন আর হয়ে যান হ্যাকার :: সফটওয়্যার এবং আরো কিছু [পর্ব-০৭]

0
308

hack crack software
টাইটেলে ক্রাকিং শব্দটি দেয়া যাচ্ছে না। জানি না সমস্যাটা কোথায়। তাই আরো কিছু লাগিয়ে দিলাম।

সফটওয়্যার হচ্ছে একধরনের প্রোগ্রাম যা বিভিন্ন কম্পিউটারের ভাষা দ্বারা লেখা হয়ে থাকে। সফটওয়্যারের কাজ হচ্ছে কম্পিউটারের হার্ডওয়্যারকে কোন কাজের নির্দেশ দেয়া। আগে যখন কম্পিউটারের তেমন প্রসার ছিল না, হার্ডওয়্যারগুলোও ছিল দূবর্ল তখন তেমন ভালো মানের সফটওয়্যারও ছিলো না। কিন্তু বর্তমানে টেকনোলোজির এই বৈপ্লবিক যুগে প্রতিদিনই শত শত সফটওয়্যার বের হচ্ছে।

ঐসকল সফটওয়্যারের মধ্যে কিছু কিছু রয়েছে ফ্রিওয়্যার আর কিছু কিছু রয়েছে শেয়ারওয়্যার। ফ্রিওয়্যার হচ্ছে বিনামূল্যে পাওয়া যায় এমন সফটওয়্যার। আপনি download.com বা brothersoft.com থেকে বিভিন্ন ফ্রিওয়্যার সফটওয়্যার বিনামূল্যে পেতে পারেন। তবে বর্তমানে বেশিরভাগ সফটওয়্যার আপনাকে টাকা দিয়ে ক্রয় করতে হবে। সেগুলোই শেয়ারওয়্যার। ঐসকল শেয়ারওয়্যারগুলোও আপনি কিছু দিনের জন্য বিনামূল্যে ব্যবহার করতে পারেন। সেগুলো হচ্ছে ডেমো ভার্সন। অর্থাৎ ঐসকল সফটওয়্যার নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ভোক্তাদের ঐ সফটওয়্যারের প্রতি আসক্তি জাগানোর জন্যই কিছুদিনের জন্য ডেমো ভার্সন দিয়ে থাকে। তাছাড়া ডেমো ভার্সনে আপনি ঐ সফটওয়্যারের সবগুলো প্রোগ্রাম পাবেন না। আর টাকা দিয়ে কিনলে আপনি ফুলভার্সন পাবেন। আমরা জানি ইন্জিন চালাতে তেল লাগে। কোন কম্পিউটারের ইন্জিন হচ্ছে হার্ডওয়্যার আর তেল হচ্ছে সফটওয়্যার।

এবার ক্রাকে আসা যাক। ক্রাক/প্যাচিং/সিরিয়াল ইত্যাদি আপনাকে হ্যাকাররা প্রদান করে থাকে। কোন শেয়ারওয়্যার সফটওয়্যারকে টাকা দিয়ে না কিনে ক্রাক/প্যাচ ব্যবহার করে বিনামূল্যে ফুলভার্সন ব্যবহার করা যায়। যদিও এটা একধরনের বাজে কাজ। তাই বড় বড় ওয়েবমাস্টার বা প্রোগ্রামাররা একে কখনই ভালো চোখে দেখেন না।

crack hack software

কিছু কিছু সফটওয়্যার রয়েছে যাদের ক্রাক/প্যাচ আপনি সার্চ করে পাবেন না। ঐ সফটওয়্যারগুলো ইন্স্টলের পর ইন্টারনেট সংযোগ দেয়া লাগে। তারপর সয়ংক্রিয়ভাবে সফটওয়্যারটি তার কোম্পানীর সার্ভারের সাথে সংযোগ স্থাপন করে। সার্ভারটি তখন খুজে দেখে যে এটি টাকা দিয়ে কেনা সফটওয়্যার কিনা। তবে এই ব্যাপার খুব কম সফটওয়্যারের ক্ষেত্রেই হয়ে থাকে।

বর্তমানে মানুষ ক্রাক/প্যাচ ইন্টারনেটে আপলোড করে রাখে যাতে অন্যরা তা ব্যবহার করতে পারে। এসকল আপলোড সাইটের মধ্যে স্বনামধন্য হচ্ছে mediafire.com, hotfile.com ইত্যাদি। এছাড়াও টরেন্টেও আপলোড করে রাখা হয়। টরেন্ট ফাইল ডাউনলোড করার জন্য টরেন্ট ডাউনলোডার প্রয়োজন হয়। ভালো টরেন্ট সাইট হচ্ছে thepiratebay.org, h33t.com ইত্যাদি। আর ভালো টরেন্ট ডাউনলোডার হচ্ছে utorrent, vuze ইত্যাদি।

ক্রাকার হচ্ছেন সেই ব্যাক্তি যিনি ইন্টারনেটে বিভিন্ন টিপস বা ট্রিকস খুজেঁ বেড়ায়। আপনি যদি ইন্টারনেটে ক্রাক/প্যাচ খুজে বেড়ান তাহলে আপনিও একজন ক্রাকার। বর্তমানে মানুষেরা rapidshare.com বা অন্যান্য প্ল্যাটফর্মে তাদের ক্রাক/প্যাচ আপলোড করে রাখে। আপনি যদি তা ডাউনলোড করেন তাহলে দেখতে পাবেন ঐ ক্রাক বা প্যাচের সাথে ক্রাক দাতার ওয়েবসাইটের ঠিকানা বা ইমেইলও দেয়া আছে। আপনি যদি গুগলে কোন ক্রাক বা প্যাচ খুঁজতে চান তাহলে নিচের কোডটি ব্যবহার করুন।

inurl:forum intext:rapidshare বা অন্যান্য ওয়েবসাইটের নাম intext:সফটওয়্যারের নাম

টরেন্ট খোঁজার ক্ষেত্রে নিচে লক্ষ্য করুন।

inurl:torrent intext:সফটওয়ারের নাম

সংযুক্তি

hack crack software

যদি আপনি রেপিডশেয়ার সার্চ করতে চান তাহলে

http://www.rapidsharesearchengine.com

http://www.filez.com

যদি আপনি মিডিয়াফায়ার সার্চ করতে চান তাহলে

http://www.mediafiresearch.org

http://www.uvrx.com/mediafire.html

যদি আপনি হটফাইল সার্চ করতে চান তাহলে

http://www.hotfilesearchengine.com

http://www.hotfilesearch.com

http://www.sharedir.com

http://www.megbase.com

যদি আপনি টরেন্ট সার্চ করতে চান তাহলে

http://www.torrentz.com

http://www.torrentreactor.com

http://www.torrents.to

আজ এ পযর্ন্তই। সবাই খুব ভালো থাকবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here