সহজ বাংলায় নেটওয়ার্কিং (NETWORKING) ধারাবাহিক টিউটোরিয়াল :পর্ব-৩

0
607

নেটওয়ার্ক ব্যবহারে অনুমোদন এবং নিরাপত্তা( Access Permission and Security)

সহজ বাংলায় নেটওয়ার্কিং (NETWORKING) ধারাবাহিক টিউটোরিয়ালঃ পর্ব- ৩

আপনারা নিশ্চয় আমার আগের টিউন দ্বারা বুজতে পেরেছেন যে সার্ভার ভিত্তিক নেটওয়ার্ক এবং পিয়ার টু পিয়ার নেটওয়ার্কের মধ্যে  পার্থক্য বিদ্যমান । এই পার্থক্য সৃষ্টি হয়েছে এদের স্ব স্ব নেটওয়ার্ক নিরাপত্তা ব্যবস্থা এবং বাস্তবায়নের কৌশলের কারনে ।

 

সহজ বাংলায় নেটওয়ার্কিং (NETWORKING) ধারাবাহিক টিউটোরিয়ালঃ পর্ব- ৩

শেয়ার পর্যায়ের নিরাপত্তা

 

আপনারা নিশ্চয় এতদিনে বুজতে পেরেছেন যে পিয়ার টু পিয়ার নেটওয়ার্ক ব্যবস্থা সার্ভার ভিত্তিক নেটওয়ার্কে নিরাপত্তার তুলনায় অনেক দুর্বল ।এটির দুর্বলতার প্রধান কারন হচ্ছে এটি সাধারনত নেটওয়ার্ক রিসোর্সসমূহের শেয়ার পর্যায়ের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে । এই ব্যবস্থাটির নাম হচ্ছে  password protected security .

শেয়ার পর্যায়ের নিরাপত্তা প্রতিটি রিসোর্স ব্যবহার করার জন্য তার অনুমোদিত ব্যবহার কারীর জন্য একটি স্বতন্ত্র পাসওয়ার্ড বরাদ্ধ করে থাকে  । উদাহরণ স্বরূপ উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেমে কোন একটি ফাইল ডিরেক্টরি ব্যবহারের জন্য নেটওয়ার্ক ভুক্ত অন্যান্য ব্যবহার কারীরকে পাসওয়ার্ড নির্দিষ্ট করে দেয়া হয় । ব্যবহারকারিরা ওই ডিরেক্টরির মধ্যে যে সকল ফাইল আছে সেগুলো কপি এবং খুলতে চাইলে ব্যবহার কারিকে অবশ্যই তার জন্য বরাদ্ধ কৃত পাসওয়ার্ড নির্ভুল ভাবে  ব্যবহার করতে হবে

 

সহজ বাংলায় নেটওয়ার্কিং (NETWORKING) ধারাবাহিক টিউটোরিয়ালঃ পর্ব- ৩

শেয়ার পর্যায়ের নিরাপত্তার জন্য ব্যবহার হয় ফ্যাট (FAT-File Allocation Table )এবং এনটিএফএস (NTFS- NT File Seytem) সিস্টেম । ডিরেক্টরি বা ফোল্ডার পর্যায়েও এ ধরনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা যথেষ্ট কার্যকর ।

 

সহজ বাংলায় নেটওয়ার্কিং (NETWORKING) ধারাবাহিক টিউটোরিয়ালঃ পর্ব- ৩

প্রবেশ অনুমোদন

সার্ভার ভিত্তিক নেটওয়ার্ক সাধারণত প্রবেশ অনুমোদন নিরাপত্তা পদ্ধতি ব্যবহার করে ।

সহজ বাংলায় নেটওয়ার্কিং (NETWORKING) ধারাবাহিক টিউটোরিয়ালঃ পর্ব- ৩

ওই ব্যবস্থাটি ফাইল পর্যায় (File Level) বা ব্যবহারকারী পর্যায়ে নিরাপত্তা নামেও পরিচিত । এ সকল নেটওয়ার্কে সর্বময় অধিকার দেয়া থাকে নেটওয়ার্ক এডমিনিস্ট্রেটরকে । তিনি নির্ধারণ করবেন একজন ব্যবহার কারী নেটওয়ার্কের কোন কোন রিসোর্স ব্যবহার করতে পারবেন শেয়ার কৃত রিসোর্স সমূহ ব্যবহার করার জন্য ব্যবহার কারিকে আলাদা আলাদা পাসওয়ার্ড ব্যবহার করতে হয় না ।বরং ব্যবহার কারী যখন নেটওয়ার্ক প্রবেশ করবে তখন সে তার জন্য বরাদ্ধ কৃত নাম এবং পাসওয়ার্ড ব্যবহার করলে হবে । নাম ও পাসওয়ার্ড এর মাধ্যমে নির্ধারণ হয় ব্যবহারকারী অনুমোদিত কিনা ;

সহজ বাংলায় নেটওয়ার্কিং (NETWORKING) ধারাবাহিক টিউটোরিয়ালঃ পর্ব- ৩

প্রবেশ অনুমোদন পদ্ধতিতে রিসোর্স শেয়ার অনুমোদন মুল্যয়ন করা হয় ব্যবহারকারীর একাউন্টে প্রদত্ত তথ্যের উপ্র ভিত্তি করে । উদাহরন স্বরূপ উইন্ডোজ এন টি নেটওয়ার্কের আওতায় কোন ব্যবহারকারীকে নেটওয়ার্ক প্রিন্টার ব্যবহার করতে হলে প্রথমে তাকে লগ অন (log on) এর মাধ্যমে একটি ডোমেইনে প্রবেশ করতে হবে ।এরপর নেটওয়ার্কভুক্ত প্রিন্টার ব্যবহার করতে পারবে কিনা এটি নির্ভর করবে তার একাউন্টে ঐ প্রিন্টার ব্যবহারের অনুমতি আছে কিনা তার উপর । এ নিরাপত্তা ব্যবস্থা শুধু এন টি  এফএস ডিস্ক পার্টিশনে কাজ করে এবং এটি প্রতিটি পৃথক পৃথক ফাইলের আলাদা করে নিরাপত্তা বিধান করে ।

Please comment Here (ভাল লাগলে কমেন্ট করুন)