আসছে থোরিয়াম জ্বালানির মোটর ইঞ্জিন, মাত্র ৮ গ্রামে ১০০ বছর চলবে

0
490

আসছে থোরিয়াম জ্বালানির মোটর ইঞ্জিন, মাত্র ৮ গ্রামে ১০০ বছর চলবে- বর্তমানে পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি প্রয়োজনীয় জিনিস হচ্ছে জ্বালানি। বিজ্ঞানীরা নানান গবেষণা চালাচ্ছেন সহজলভ্য এবং দীর্ঘ সময় চলে এমন জ্বালানি তৈরি করতে, সেই ধারাবাহিকতায় এবার বিজ্ঞানিরা তৈরি করছেন থোরিয়ামের সাহায্যে চলবে এমন ইঞ্জিন।
ইতোমধ্যে Laser Power Systems (LPS) নামের মার্কিন কোম্পানি জানিয়েছে তারা এমন এক জ্বালানি ইঞ্জিন তৈরির দ্বার প্রান্তে যাতে একবার জ্বালানি ভরে প্রায় ১০০ বছর ব্যবহার করা যাবে!
Laser Power Systems (LPS) হচ্ছে প্রকৃত পক্ষে একটি প্রতিষ্ঠান যাদের কাজ হচ্ছে এমন এক জ্বালানি খুঁজে বাহির করা যার মাধ্যমে পরিবেশ দূষণ কম হবে একই সাথে যা স্বল্প ব্যবহারে দীর্ঘ সময় ইঞ্জিন চালাতে পারবে।
Laser Power Systems (LPS) গবেষণায় দেখা গেছে থোরিয়াম হচ্ছে তেমন একটি জ্বালানি যা খুবি অল্প পরিমাণে মেশিনকে নিয়ে যেতে পারবে চরম অবস্থায়। একই সাথে থোরিয়াম পরিবেশের জন্যও ঝুঁকি পূর্ণ নয়। থোরিয়াম জ্বালানি হিসেবে ব্যবহারের প্রচেষ্টা সেই ২০০৯ সাল থেকেই শুরু হয়েছে।
থোরিয়াম ব্যবহারযোগ্য ইঞ্জিন তৈরির ক্ষেত্রে গবেষকরা নানান গবেষণা এবং অনেক ইঞ্জিন পর্যবেক্ষণ শেষে ৫০০ পাউন্ড ওজনের সাধারণ গাড়ির ইঞ্জিনের মতোই দেখতে একটি ইঞ্জিন তৈরি করেছেন যা সফল ভাবেই থোরিয়াম জ্বালানি ব্যবহার করতে পারে।
এই ইঞ্জিনে মাত্র ৮ গ্রাম থোরিয়াম দিয়ে একটি গাড়ি প্রায় ১০০ বছর রাস্তায় চলতে পারবে মাঝে তাকে আর জ্বালানি নিতে হবেনা।Laser Power Systems (LPS) এর প্রধান নির্বাহী Charles Stevens বলেন, “থোরিয়াম একটি উচ্চ ক্ষমতায় জ্বালানি এটির সামান্য পরিমাণ দিয়ে একটি গাড়ি অনেক পথ যেতে পারবে একই সাথে মাত্র ১ গ্রাম থোরিয়াম ৭৩৯৬ গ্যালন অর্থাৎ ২৮,০০০ লিটার পেট্রোলের সমান।
“এছাড়া থোরিয়াম ক্ষমতার দিক দিয়ে এবং নিরাপত্তার দিক দিয়ে পারমাণবিক শক্তি ইউরিয়াম থেকে অনেক নিরাপদ। ফলে জ্বালানি ইউরিনিয়ামের বিকল্প হিসেবে থোরিয়াম ব্যবহার করা যেতে পারে যাতে পারমাণবিক তেজস্ক্রিয়তাও নেই।

Please comment Here (ভাল লাগলে কমেন্ট করুন)