বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠানের তৈরি অ্যান্টিভাইরাস ব্যবহার করে নিরাপত্তা কঠিন করছে ভারত–আয়ারল্যান্ড

0
517

ভারতের বিভিন্ন করপোরেট প্রতিষ্ঠান আর আয়ারল্যান্ডের পুলিশ বিভাগ এখন বাংলাদেশি নিরাপত্তা সফটওয়্যারের ব্যবহার করছে। সম্প্রতি আইসিটি অস্কারখ্যাত অ্যাপিকটার মেরিট বিভাগে পুরস্কার পাওয়া রিভ অ্যান্টিভাইরাস দেশের সীমানা ছাড়িয়ে বিদেশেও জনপ্রিয় হচ্ছে।

ভারতের কয়েকটি করপোরেট প্রতিষ্ঠানে বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠানের তৈরি অ্যান্টিভাইরাস ব্যবহার করা হচ্ছে। এর মধ্যে একটি প্রতিষ্ঠানে ৭০০ টির বেশি কম্পিউটার রয়েছে। সব মিলিয়ে ভারতের বাজারে গত বছর থেকে যাত্রা শুরু করা রিভ অ্যান্টিভাইরাস আস্থা কুড়াচ্ছে। আজ শনিবার এ তথ্য জানান রিভ অ্যান্টিভাইরাসের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সঞ্জিত চ্যাটার্জি।

সঞ্জিত চ্যাটার্জি এক সাক্ষাৎকারে প্রথম আলোকে জানান, গত কয়েক বছরে বেশ কিছু সাইবার হামলার ঘটনা ঘটেছে এবং আমরা ধীরে ধীরে সচেতন হওয়ার চেষ্টা করছি। কিন্তু যতখানি সাবধানতা আমাদের অবলম্বন করা উচিত ততটা এখনো আমরা করছি না। গত কয়েক বছরে বাংলাদেশে ফিশিং আক্রমণ বাড়তে দেখা গেছে। ফিশিং আক্রমণ মূলত প্রলুব্ধ করে কোনো লিংকে ক্লিক করানোর মাধ্যমে তথ্য হাতিয়ে নেওয়া। ২০১৫-১৬ সালে বাংলাদেশে যে পরিমাণ ফিশিং আক্রমণ ছিল গত বছরে তা দ্বিগুণ বেড়ে গেছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ক্ষতিকর লিংক ছড়ানোর হার বেড়েছে আরও বেশি। কিন্তু এ ক্ষেত্রে অনেকেই অ্যান্টিভাইরাস ব্যবহার করছেন না। কেউ বিনা পয়সার অ্যান্টিভাইরাসকে নিরাপদ মনে করছেন।

সঞ্জিত চ্যাটার্জি জানান, বাংলাদেশি নিরাপত্তা সফটওয়্যার নির্মাতা হিসেবে রিভের তৈরি অ্যান্টিভাইরাস এখন দেশের সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন দপ্তরের পাশাপাশি ভারতের করপোরেট প্রতিষ্ঠানগুলো এবং আয়ারল্যান্ডের পুলিশ বিভাগ ব্যবহার করছে। ইতিমধ্যে এ সফটওয়্যার উল্লেখযোগ্য আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেয়েছে। ব্যবহারকারীর তালিকায় প্রতিনিয়ত নতুন দেশ ও প্রতিষ্ঠান যুক্ত হচ্ছে।

বাংলাদেশি বহুজাতিক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান রিভ সিস্টেমসের তৈরি রিভ অ্যান্টিভাইরাস ২০১৬ সালের মাঝামাঝি সময়ে বাংলাদেশ বাজারে যাত্রা শুরু করে। ২০১৭ সালের মার্চ থেকে এটি রপ্তানি হচ্ছে ভারতে। নেপালে রপ্তানি হচ্ছে মে থেকে। মধ্যপ্রাচ্য, ইউরোপ, আমেরিকা ও অস্ট্রেলিয়াতে এর ব্যবহার শুরু হয়েছে।

রিভের ফিচার সম্পর্কে প্রতিষ্ঠানটির বিপণন ব্যবস্থাপক ইবনুল করিম বলেন, অনেকে ভাবেন অ্যান্টিভাইরাস ইনস্টল করলে কম্পিউটার ধীর গতির হয়ে যায়। কিন্তু এতে আছে টার্বো স্ক্যান প্রযুক্তি যা কম্পিউটারের গতিতে প্রভাব ফেলে না। অনেক বেশি ভাইরাস ও ম্যালওয়্যার প্রতিরোধ করে। এতে অ্যাডভান্সড প্যারেন্টাল কন্ট্রোল ফিচার আছে। এর মাধ্যমে বাবা-মা সন্তানের অনলাইন কার্যকলাপে নজর রাখতে পারবেন। শুধু ভাইরাস থেকে নয়, ফোন চুরি কিংবা হারিয়ে গেলেও রিভ মোবাইল সিকিউরিটির মাধ্যমে তা খুঁজে পাওয়া সম্ভব।

ইবনুল করিম বলেন, বাংলাদেশি সফটওয়্যার হিসেবে রিভ এখন আন্তর্জাতিক অঙ্গনে পরিচিত হয়ে উঠছে। শিগগিরই এন্ড পয়েন্ট সিকিউরিটির ঘোষণা দেবে রিভ অ্যান্টিভাইরাস। বাংলাদেশি সফটওয়্যার ব্যবহারের বৃহৎ প্রতিষ্ঠানের তালিকাটি তখন আরও বড় হবে।

প্রয়োজনীয় হলে পোস্টটি শেয়ার করুন।
ধন্যবাদ, itdoctor24.com এর সাথেই থাকুন।

 

Please comment Here (ভাল লাগলে কমেন্ট করুন)